এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা অনিশ্চয়তায় - পরীক্ষা - দৈনিকশিক্ষা

এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা অনিশ্চয়তায়

নিজস্ব প্রতিবেদক |

চলতি বছরের এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষা কবে হবে বা আদৌ হবে কিনা সেটি এখন আর কেউ জানেন না। করোনার কারণে এক বছরের বেশি সময় ধরে ক্লাস না হওয়ায় সংক্ষিপ্ত পাঠ্যসূচিতে গত ৩০ মার্চ থেকে ৬০ দিন ধরে শ্রেণিকক্ষে ক্লাস করিয়ে এসএসসি এবং ৮০ দিন ক্লাস করিয়ে এইচএসসি পরীক্ষা নেয়ার পরিকল্পনা ছিল সেটিও ভেস্তে গেছে। ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের কর্মকর্তারা দৈনিক শিক্ষা ডটকমকে বলেছেন করোনার বিদ্যমান পরিস্থিতিতে বলা যাবে না কবে এই পরীক্ষা হবে। আবার গত বছরের এইচএসসি পরীক্ষার মতো পরীক্ষা ছাড়াই মূল্যায়ন হবে কিনা সেটি নির্ভর করছে সরকারের উচ্চপর্যায়ের সিদ্ধান্তের ওপর।

আগামী বছরের পরীক্ষার্থীরা আরও বিপাকে: নবম-দশম শেণির মোট পাঠ্যসূচির ভিত্তিতে এসএসসি এবং একাদশ ও দ্বাদশ শ্রেণির পাঠ্যসূচিতে এইচএসসি পরীক্ষা হয়। আগামী বছরের এসএসসি পরীক্ষার্থীরা গত বছরের জানুয়ারিতে নবম শ্রেণীতে ওঠার পর অল্প কয়েকদিন ক্লাস পেয়েছিল।কিন্তু দশম শ্রেণিতে উঠে কোন ক্লাসই পায়নি। একইভাবে আগামী বছরের এইচএসসি পরীক্ষার্থীরা ক্লাসে পিছিয়ে গেছে। এরকম পরিস্থিতিতে ক্লাস ছাড়া আগামী বছরের ফেব্রুয়ারিতে এসএসসি এবং এপ্রিলে এইচএসসি পরীক্ষা নেয়ার সুযোগ নেই বলে জানিয়েছেন শিক্ষাবোর্ডের কর্মকর্তারা।

বিগত প্রায় এক দশকেরও বেশি সময় ধরে এসএসসি পরীক্ষা ফেব্রুয়ারি এবং এইচএসসি পরীক্ষা এপ্রিলে অনুষ্ঠিত হয়ে আসছে। কিন্তু করেনার ভাইরাসের কারণে গত বছরের ১৭ মার্চ থেকে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছুটি চলায় পরীক্ষা দূরে থাক, যারা পরীক্ষার্থী তারা এক বছরের বেশি সময় ধরে শ্রেণিকক্ষে যেতে পারছেন না। ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের একাধিক কর্মকর্তা দৈনিক শিক্ষা ডটকমকে বলেছেন তাদের পরিকল্পনা ছিল ৬০ দিন ক্লাস শেষে আগামী জুলাই মাসের প্রথম সপ্তাহে এসএসসি পরীক্ষা শুরু করা এবং এইচএসসি পরীক্ষা শেষে দুই মাস বিরতি দিয়ে সেপ্টেম্বরে এসএসসি পরীক্ষা নেওয়া। এ লক্ষ্যে তারা সময়সূচি ঘোষণা করতে চাইছিলেন। কিন্তু এখন সব পরিকল্পনা বাদ দিতে হয়েছে ফের করোনা সংক্রমণ বৃদ্ধি ও লকডাউনের কারণে।

 ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের সচিব তপন কুমার সরকার দৈনিক শিক্ষাকে বলেন অনিশ্চয়তা থাকলেও তারা প্রস্তুতি নিয়ে রেখেছেন। এরই ধারাবাহিকতায় পহেলা এপ্রিল থেকে অনলাইনে এসএসসি পরীক্ষার ফরম পূরণ শুরু হয় যা শেষ হওয়ার কথা ছিল ৭ এপ্রিল। তবে এখন লকডাউন এর কারণে ফরম পূরণের সময় বাড়ানো হয়েছে। ফরম পূরণের পাশাপাশি এসএসসি পরীক্ষার প্রশ্নপত্র প্রণয়ন করে সেগুলো মডারেট করার জন্য বিজি প্রেসে পাঠানো হয়েছে।  সচিব বলেন বিকল্প কোনো চিন্তা করলেও ফরম পূরণ করতেই হবে।

করোনা ভাইরাসের সংক্রমণের কারণে গত বছরের এইচএসসি পরীক্ষা হয়নি। তখন বিশেষ ব্যবস্থায় পরীক্ষার্থীদের জেএসসি এবং এসএসসি পরীক্ষার ফলাফল মূল্যায়ন করা হয়েছে।

কঠোর বিধিনিষেধ বাড়তে পারে আরও এক সপ্তাহ : জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী - dainik shiksha কঠোর বিধিনিষেধ বাড়তে পারে আরও এক সপ্তাহ : জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী প্রধানমন্ত্রীর উপহার পেলেন কিন্ডারগার্টেনের ১০০ শিক্ষক - dainik shiksha প্রধানমন্ত্রীর উপহার পেলেন কিন্ডারগার্টেনের ১০০ শিক্ষক বিদেশি বিশ্ববিদ্যালয়ের শাখা ও স্টাডি সেন্টার বিদ্যমান আইনের সঙ্গে সাংঘর্ষিক - dainik shiksha বিদেশি বিশ্ববিদ্যালয়ের শাখা ও স্টাডি সেন্টার বিদ্যমান আইনের সঙ্গে সাংঘর্ষিক দুই ধরনের দুই ডোজ টিকা নিলে পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা দিতে পারে - dainik shiksha দুই ধরনের দুই ডোজ টিকা নিলে পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা দিতে পারে করোনার প্রভাবে শিক্ষক এখন কচু ব্যবসায়ী - dainik shiksha করোনার প্রভাবে শিক্ষক এখন কচু ব্যবসায়ী মিতু হত্যা : সাবেক এসপি বাবুল আক্তারকে প্রধান আসামি করে মামলা - dainik shiksha মিতু হত্যা : সাবেক এসপি বাবুল আক্তারকে প্রধান আসামি করে মামলা ঘরে বসেই নতুন শিক্ষকদের ১০ দিনের অনলাইন প্রশিক্ষণ - dainik shiksha ঘরে বসেই নতুন শিক্ষকদের ১০ দিনের অনলাইন প্রশিক্ষণ এমপিও কমিটির ভার্চুয়াল সভা ১৭ মে - dainik shiksha এমপিও কমিটির ভার্চুয়াল সভা ১৭ মে শিক্ষক পাবেন পাঁচ হাজার, কর্মচারী আড়াই হাজার টাকা করে - dainik shiksha শিক্ষক পাবেন পাঁচ হাজার, কর্মচারী আড়াই হাজার টাকা করে সেহরি ও ইফতারের সূচি - dainik shiksha সেহরি ও ইফতারের সূচি দৈনিক আমাদের বার্তায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন ৩০ শতাংশ ছাড়ে - dainik shiksha দৈনিক আমাদের বার্তায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন ৩০ শতাংশ ছাড়ে ‘কওমি মাদরাসায় জাতীয় চেতনা ও সংস্কৃতিবোধ উপেক্ষিত’ - dainik shiksha ‘কওমি মাদরাসায় জাতীয় চেতনা ও সংস্কৃতিবোধ উপেক্ষিত’ please click here to view dainikshiksha website