তালা ভেঙে স্কুলে চুরি - স্কুল - দৈনিকশিক্ষা

তালা ভেঙে স্কুলে চুরি

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি |

সাতক্ষীরার আশাশুনি উপজেলার কোদন্ডা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে চুরি হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার গভীর রাতে এ চুরির ঘটনা ঘটেছে। বুধবার সকালে বিষয়টি স্কুল কর্তৃপক্ষের নজরে আসে।

ওই স্কুলের প্রধান শিক্ষক দুখিরাম ঢালী দৈনিক শিক্ষাডটকমকে জানান, বিদ্যালয়ের অফিস কক্ষের তালা ভেঙে চোরেরা ভেতরে প্রবেশ করে। এরপর অফিসের চারটি আলমারির তালা ভেঙে কাগজপত্রাদি তছনছ করে এবং নগদ ৪ হাজার টাকাসহ ৫০ হাজার টাকার মালামালের ক্ষতি করে। বুধবার সকালে বিষয়টি জানতে পেরে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান, মেম্বর ও গণ্যমান্য ব্যক্তিরা বিদ্যালয়ে আসেন। এ ব্যাপারে আশাশুনি থানায় অভিযোগ করা হয়েছে। 

জানা গেছে, থানার এস আই সেলিম রেজা সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে এস আই সেলিম জানান, সরজমিনে পরিদর্শন করে থানার অফিসার ইনচার্জকে পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য বলেছি। তদন্ত চলছে। 

এদিকে চুরির ঘটনায় বিদ্যালয়ে তাৎক্ষণিকভাবে জরুরি সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় অস্থায়ীভাবে প্রহরী নিয়োগসহ চুরি ঠেকাতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে বলে জানান প্রধান শিক্ষক দুখিরাম ঢালী।

শিক্ষার সব খবর সবার আগে জানতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেলের সাথেই থাকুন। ভিডিওগুলো মিস করতে না চাইলে এখনই দৈনিক শিক্ষাডটকমের ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন এবং বেল বাটন ক্লিক করুন। বেল বাটন ক্লিক করার ফলে আপনার স্মার্ট ফোন বা কম্পিউটারে সয়ংক্রিয়ভাবে ভিডিওগুলোর নোটিফিকেশন পৌঁছে যাবে।

দৈনিক শিক্ষা ডটকমের ইউটিউব চ্যানেল SUBSCRIBE করতে ক্লিক করুন।

ফাজিল পরীক্ষা স্থগিত - dainik shiksha ফাজিল পরীক্ষা স্থগিত মাস্ক ছাড়া বের হলেই জরিমানা করা হবে : জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী - dainik shiksha মাস্ক ছাড়া বের হলেই জরিমানা করা হবে : জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী উপবৃত্তির টাকা পাঠানো শুরু, দ্রুত তুলতে হবে শিক্ষার্থী-অভিভাবকদের - dainik shiksha উপবৃত্তির টাকা পাঠানো শুরু, দ্রুত তুলতে হবে শিক্ষার্থী-অভিভাবকদের মাদরাসায়ও অনলাইন ক্লাস, খোলা থাকবে অফিস - dainik shiksha মাদরাসায়ও অনলাইন ক্লাস, খোলা থাকবে অফিস কওমি মাদরাসাকে বোর্ডের অধীনে নিয়ে আসা প্রয়োজন : শিক্ষামন্ত্রী - dainik shiksha কওমি মাদরাসাকে বোর্ডের অধীনে নিয়ে আসা প্রয়োজন : শিক্ষামন্ত্রী ভিসির পদত্যাগের দাবি অযৌক্তিক, চাইলেই সরানো যায় না : শিক্ষা উপমন্ত্রী - dainik shiksha ভিসির পদত্যাগের দাবি অযৌক্তিক, চাইলেই সরানো যায় না : শিক্ষা উপমন্ত্রী উপবৃত্তির টাকা পাঠানো শুরু, দ্রুত তুলতে হবে শিক্ষার্থী-অভিভাবকদের - dainik shiksha উপবৃত্তির টাকা পাঠানো শুরু, দ্রুত তুলতে হবে শিক্ষার্থী-অভিভাবকদের please click here to view dainikshiksha website